মানুষের মুখে হাসি ফেরাচ্ছেন অভিনেতা আরুষ দত্ত ও পিস হেভেন চ্যারিটেবল ট্রাস্ট

রাজ্য জুড়ে কোভিড পরিস্থিতির বাড়বাড়ন্ত সেই সাথে কয়েকদিন আগের ইয়াস ঝড়ে নাজেহাল অবস্থা রাজ্যবাসীর।সমাজের নীচু স্তরের মানুষের দুর্ভোগ পৌঁছেছে চরমে।এই পরিস্থিতি সামাল দিতে এগিয়ে এসেছেন বহু মানুষ।পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন জায়গার দুঃস্থ মানুষের সেবা করতে এবার এগিয়ে আসলেন অভিনেতা আরুষ দত্ত।ইতিমধ্যে করোনার কারণে অনেকগুলো দিন হলো টলিউড ইন্ডাস্ট্রি বন্ধ,কবে কাজ শুরু হবে সেই নিয়ে সবাই একরকম মানসিক চিন্তায় ভুগছেন,কিন্তু এই মানসিক চিন্তা এক পাশে রেখে আরুষ নেমে পড়েছেন দুঃস্থ মানুষদের সেবা করতে।

এর আগেও আরুষ বাবু সোশ্যাল ওয়ার্কের সাথে যুক্ত ছিলেন,এই ধরণের সামাজিক কাজের জন্য বহু জায়গা থেকে পুরষ্কারও পেয়েছেন,যেমন-হেল্প এজ ইন্ডিয়া।
কিন্তু এবার সরাসরি এনজিও র সাথে যুক্ত হয়ে কাজ শুরু করলেন তিনি।তার এই অর্গানাইজেশনের নাম পিস হেভেন চ্যারিটেবল ট্রাস্ট।আরুষ পিস হেভেন ট্রাস্টের কর্ণধার শ্রী প্রসেনজিৎ সিংহরায় এবং শ্রীমতি রাজলক্ষী সাহাকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাকে এই ট্রাস্টে যোগদান করানোর জন্য।

আরুষের পাশাপাশি তার স্ত্রী পায়েল দত্ত ও যোগদান করেছেন পিস হেভেন চ্যারিটেবল ট্রাস্টের কাজে।
গত ৩০ শে মে তারা রবিবারের দুপুরের খাবার,যেখানে প্রায় ৩০০ জনের কাছাকাছি মানুষকে খাবার খাইয়েছেন এবং এই রবিবারের খাবার খাওয়ানোর অনুষ্ঠান আগামী দিনেও চলবে।

এরপর ২রা জুন আরুষ এবং পিস হেভেন চলে যান সুন্দরবন লাগোয়া তুশখালি এবং আতাপুর অঞ্চলে,সেখানেও প্রায় ৩০০ জনের খাবারের ব্যবস্থা করেন।
আগামী দিনে দীঘা,বকখালি আরও সমস্ত ক্ষতিগ্রস্ত জায়গায় পৌঁছে যাবেন তারা এবং সাধ্যমতো চেষ্টা করবেন সাহায্য করার।
অভিনেতা আরুষ দত্ত জানিয়েছেন তার আদি বাড়ি পুরুলিয়া জেলার আদ্রা শহরে। তাই তিনি চেষ্টা করবেন পুরুলিয়ার বিভিন্ন গ্রামে গিয়ে যতটা পারবেন সেখানকার ক্ষতিগ্রস্ত গরীব মানুষের পাশে দাঁড়াতে।

close