পুরভোটের ভবিষ্যৎ নিয়ে ভার্চুয়াল বৈঠক !

জোনাকি পণ্ডিত: কোভিড আবহে রাজ্যে পুরভোটের কি হবে?নাকি ভোট পিছিয়ে দেওয়া হবে? হাইকোর্টের নির্দেশের পর তৎপর কমিশন। আগামিকাল, শনিবার মুখ্যসচিবের (CS) হরেকৃষ্ণ দ্বিবেদীর সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠক করবেন নির্বাচন কমিশনার সৌরভ দাস। সেই বৈঠকের পরই নেওয়া হবে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত।

 

করোনার বাড়বাড়ন্ত ঠেকাতে নবান্নের তরফ থেকে রাজ্যে ফের কড়া বিধিনিষেধ জারি করেছে। নির্ধারিত সূচি মেনেই কি পুরভোট হবে?শুধু মুখ্যসচিব নন, এর আগে স্বরাষ্ট্রসচিব ও স্বাস্থ্য সচিবের সঙ্গেও বৈঠক করেছিলেন নির্বাচন কমিশনার। সেই বৈঠকে কিন্তু সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল, ২২ জানুয়ারি নির্ধারিত দিনেই ভোট হবে শিলিগুড়ি, বিধাননগর, আসানসোল ও চন্দননগরে পুরনিগমে। সেইমত রাজ্য সরকার কমিশনকে জানিয়েছে, পুরভোটে ৯ হাজার সশস্ত্র পুলিশ মোতায়েন করা হবে।

 

তবে এখন কোভিডের জন্য অন্তত ১ মাস ভোট পিছিয়ে দেওয়ার দাবি করে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করা হয় হাইকোর্টে । সেই মামলায় প্রেক্ষিতেই শুক্রবার জনস্বার্থের কথা ভেবে ভোট পিছিয়ে দেওয়া পক্ষেই মত দিল আদালত। মোট ৪ থেকে ৬ সপ্তাহ পরে ভোট হবে। এই বিষয়ে কমিশনকে সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষেত্রে ৪৮ ঘণ্টার সময়সীমা বেঁধে দিয়েছে হাইকোর্ট। আগামিকাল, অর্থাৎ শনিবার মুখ্যসচিবের সঙ্গে বৈঠকের পর ভোট নিয়ে কমিশন চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে বলে বলেই সূত্রের খবর।

 

 

 

 

 

 

 

close